Pi Fingers Motivation

যে ১০টি কাজ জীবন বদলে দেবে- বিল গেটস

Author:

Published:

Updated:

বিল গেটসের সংগ্রামী জীবনী, বিল গেটসের ১০ টি কাজ

Affiliate Disclaimer

As an affiliate, we may earn a commission from qualifying purchases. We get commissions for purchases made through links on this website from Amazon and other third parties.

প্রতিবছর বিশ্বের সবচেয়ে ধনী মানুষের তালিকা প্রকাশ করে যুক্তরাষ্ট্রের ফোর্বস সাময়িকী। সে তালিকায় গত ২২ বছরে মোট ১৭ বার যাঁর নাম শীর্ষে ছিল, তিনি বিল গেটস। মাইক্রোসফটের অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা। বিভিন্ন সাক্ষাৎকার, ভাষণে তরুণদের উদ্দেশে চমকপ্রদ সব পরামর্শ দিয়েছেন তিনি।

১. যত দ্রুত সম্ভব শুরু করে দিনঃ
কারণ, বুড়ো বয়সে যেন আপনাকে এই আপসোস না করতে হয় যে, ‘ইশ কত কি করতে পারতাম আমি! কতো কি করতে চেয়েছিলাম!’ বিল গেটস সবসময় একটি কথা বলেন, এখনই শুরু করে দাও । যে আইডিয়া মাথায় নিয়ে ঘুরছো তুমি, তা যদি সময়মতো বাস্তবায়ন করতে না পারো, তাহলে কয়েক বছর পর দেখবে, ঠিক তোমার আইডিয়াটি কাজে লাগিয়ে অন্য কেউ না কেউ সফল হয়ে গেছে!’

২. প্রতিদিন নিজের সেরাটা দিতে হবে:
বিল গেটসের ভাষায়, ‘জীবনটা সেমিস্টার হিসেবে ভাগ করা নেই, যে দশ সপ্তাহ পর পর তুমি তোমার ভুলগুলো শুধরে নেওয়ার সুযোগ পাবে। এমনকি এখানে “ব্রেক” বলেও কিছু নেই।’
সুতরাং, প্রতিদিন আপনাকে আপনার সেরাটাই দিতে হবে।

৩. আপনি নিজেই নিজের বস:
যদি আপনি আপনার স্বপ্নপূরণের কাজে না নেমে পড়েন, তাহলে অন্য কেউ ঠিক তার স্বপ্ন পূরণে আপনাকে কাজে লাগাবে । তাই অন্যের স্বপ্ন-পূরণের পেছনে না ছুটে আপনি আপনার নিজের স্বপ্নের পেছনে ছোটেন ।

৪. ‘না’ বলতে শিখুন:

আপনি যত প্রতিভাবানই হয়ে থাকেন না কেন, প্রতিদিন ২৪ ঘণ্টার বেশি কিন্তু আপনার হাতে নেই । এই ২৪টি ঘণ্টাকে কে কীভাবে ব্যবহার করলো, সেটাই নির্ধারণ করে দেয়- একজন সফল ও ব্যর্থ মানুষের মধ্যে পার্থক্য ।
বিল গেটস একবার হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের এক বক্তব্যে বলেছিলেন, জীবনের সেরা উপদেশটি আমি পেয়েছি বন্ধু ‘ওয়ারেন বাফেটের’ কাছে থেকে । সে বলেছিল, তোমাকে ‘না’ বলতে জানতে হবে । বিল গেটস মনে করেন, কখনো কখনো ‘না’ বলতে পারাটা আপনাকে আপনার লক্ষ্যে অবিচল রাখতে সাহায্য করবে।

৫. দৃঢ় প্রতিজ্ঞ হোনঃ

প্রত্যেক সফল উদ্যোক্তাই একটি ব্যাপারে খুব জোর দিতে বলেন- সেটি হচ্ছে দৃঢ় প্রতিজ্ঞ হওয়া । প্রতিজ্ঞা আসে ভালোবাসা থেকে । কাজের প্রতি প্রচণ্ড ভালোবাসা তৈরি করুন । আপনি যে কাজটি করছেন, তার প্রতি ভালোবাসা থাকতে হবে আপনার । সফল মানুষেরা একমাত্র ভালোবাসা দিয়ে প্রতিটি কঠিন কাজকেই সহজ করে ফেলেন ।

৬. শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান নয়, বরং জীবনই আপনার সেরা স্কুল:

আপনি যত বইপুস্তক পড়ে থাকেন না কেন, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে যত পরীক্ষা দেন না কেন- এসবের কোনটাই আপনাকে পুরোপুরি শেখাতে পারবে না- কীভাবে জীবনের কঠিন চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করতে হয় । আপনাকে নিজের জীবন থেকে শিখেই চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় প্রস্তুত হতে হবে ।

৭. আশা হারাবেন না:

লক্ষ্যে পৌঁছাতে হলে হতাশাবাদী হলে চলবে না। বরং সব সময় আশাবাদী হতে হবে। ২০১৩ সালে স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের বিল গেটস বলেছিলেন, ‘আশাবাদ অনেক সময় মিথ্যে আশায় পরিণত হয়। কিন্তু মনে রাখতে হবে, “মিথ্যে হতাশা” বলেও কিছু আছে।’

৮. সমালোচনাকে স্বাগত জানান:

বিল গেটস তাঁর বিজনেস অ্যাট দ্য স্পিড অব থট বইয়ে সমালোচনার প্রয়োজনীয়তা সম্পর্কে বলেছেন। তিনি বিশ্বাস করেন, অভিযোগ আর অসন্তুষ্টি আপনাকে আরও ভালো করার সুযোগ করে দেয়। তিনি লিখেছেন, ‘আপনার সবচেয়ে অসন্তুষ্ট কাস্টমাররাই আপনার শেখার সবচেয়ে বড় উৎস।’

৯. সাফল্যের হিসাব করুন:

২০০৩ সালে বিল গেটস দ্য মোস্ট পাওয়ারফুল আইডিয়া ইন দ্য ওয়ার্ল্ড নামে একটা বই থেকে তাঁর শিক্ষা কী, তা বলেছেন। ‘আপনি যদি একটা নির্দিষ্ট লক্ষ্য ঠিক করে সব সময় হিসাব করেন, আপনি কতটুকু এগোলেন, তাহলেই লক্ষ্যে অবিচল থাকতে পারবেন।’ সঙ্গে তিনি এ-ও যোগ করেছেন, ‘এটা বলা যত সহজ, করা ততটাই কঠিন।’

১০. জীবনটা সহজ নয়, এটা মেনে নিন:

আপনার আশে পাশে যদি এমন কোন মানুষ থাকে যার এই লেখাটি পড়া উচিত বলে মনে করেন , তার সাথে অবশ্যই শেয়ার করবেন । অনুপ্রেরণামূলক গল্প, সফল ব্যক্তিদের জীবনী, সফলতার সূত্র এবং জীবনের নানান সমস্যা আপনাদের পাশে আছে পাই ফিঙ্গার্স মোটিভেশন । আর আগামী পর্বে আপনি কোন বিষয়ে লেখা চান কমেন্ট করে জানান । ভাল থাকুন ।

সফলতা কেবল আপনার জন্যই ।

About the author

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Latest posts

  • জাকারবার্গ এবং ফেসবুকের গল্প | কীভাবে কঠিন ও গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নিবেন

    জাকারবার্গ এবং ফেসবুকের গল্প | কীভাবে কঠিন ও গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নিবেন

    বর্তমানে ফেসবুক ব্যবহার করে না এমন মানুষ খুজে পাওয়া প্রায় অসম্ভব। আমরা অনেকেই মার্ক জাকারবার্গ এর ফেসবুকের গল্প জানি । একটি ছোট্ট রুম থেকে সারা পৃথিবীব্যাপী ছড়িয়ে পরে সকল ভাষাভাষী মানুষের দৈনন্দিন জীবনের অভ্যাসকে বদলে দিয়েছে ফেসবুক । কি ভাবে মার্ক জাকারবার্গ করলেন এটা ? আপনি কি জানেন জাকারবার্গকে তার স্বপ্নের জন্য কি কি ত্যাগ করতে…

    Read more

  • বিয়ার গ্রিলসের হার না মানা গল্প

    বিয়ার গ্রিলসের হার না মানা গল্প

    ডিসকভারি চ্যানেলে ম্যান ভার্সেস ওয়াইল্ড অনুষ্ঠানটি দেখেননি এমন লোক কমই পাওয়া যাবে । অনুষ্ঠানটি যার কারণে সারা বিশ্বে এতো জনপ্রিয়তা পেয়েছে তিনি হচ্ছেন এডওয়ার্ড মাইকেল বিয়ার গ্রিলস (Bear Grylls) । সবার কাছে বিয়ার গ্রিলস নামেই পরিচিত। তিনি একাধারে একজন লেখক, টেলিভিশন অনুষ্ঠানের উপস্থাপক, সাবেক সেনা কমান্ডো ও বর্তমানে বিশ্ব স্কাউট সংস্থার চীফ অব স্কাউট ।…

    Read more

  • সেরা নেতৃত্বের জন্য নেলসন ম্যান্ডেলার ১০ টি  উক্তি

    সেরা নেতৃত্বের জন্য নেলসন ম্যান্ডেলার ১০ টি উক্তি

    নেলসন ম্যান্ডেলা ছিলেন বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় এবং আকর্ষণীয় রাষ্ট্রনায়কদের একজন, যিনি দক্ষিণ আফ্রিকায় বর্ণবাদের অবসান ঘটিয়ে বহু বর্ণ ভিত্তিক গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার সংগ্রামে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন।  আকর্ষণীয় ব্যক্তিত্ব, প্রখর রসবোধ, তিক্ততা ভুলে বৈরি প্রতিপক্ষের দিকে বন্ধুত্বের হাত বাড়িয়ে দেয়ার মত উদারতা এবং তাঁর বর্ণাঢ্য ও নাটকীয় জীবন কাহিনী—এসব মিলিয়ে নেলসন ম্যান্ডেলা ছিলেন এক জীবন্ত কিংবদন্তী । আব্রাহাম…

    Read more